Type Here to Get Search Results !

নবম শ্রেণী জীবন বিজ্ঞান দ্বিতীয় অধ্যায় গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নোত্তর || জীবন সংগঠনের স্তর অধ্যায়ের সাজেশন 2022 || Class nine Jeevan sangathan stor suggestion 2022


জীবন সংগঠনের স্তর অতিসংক্ষিপ্ত প্রশ্ন ও উত্তর 

জীবন সংগঠনের স্তর দ্বিতীয় অধ্যায় | নবম শ্রেণীর জীবন বিজ্ঞান দ্বিতীয় অধ্যায় | অতি সংক্ষিপ্ত প্রশ্নের গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নোত্তর | নবম শ্রেণীর জীবন বিজ্ঞান দ্বিতীয় অধ্যায় প্রশ্ন ও উত্তর ২০২২ 


1. CO2 পরিবহণকারী একটি লবণের নাম কী ?

উত্তর : সোডিয়াম বাইকার্বনেট (NaHCO3)

2. দুটি মাইক্রোমলিকিউলস্-এর উদাহরণ দাও। 

উত্তর:  গ্লুকোজ, অ্যামাইনো অ্যাসিড।

3. উদ্ভিদদেহে সঞ্চিত শর্করাটির নাম লেখো।

উত্তর : শ্বেতসার বা স্টার্চ।

4. RNA-তে উপস্থিত শর্করাটির নাম কী ?

উত্তর : ইউরাসিল (U)।

5. ভিটামিন B12-এর অভাবজনিত রোগ কোনটি ?

উত্তর: পারনিসিয়াস অ্যানিমিয়া।

6. কোন্ মৌলটি ইনসুলিনের সঞ্চয় ও কর্মক্ষমতা বৃদ্ধিতে সাহায্য করে?

উত্তর : দস্তা।

7. কোশপর্দা দ্বারা প্রাণীকোশের তরল খাদ্য গ্রহণের পদ্ধতির নাম কী?

উত্তর: পিনোসাইটোসিস।

8. কোয়ান্টাজোমযুক্ত কোশ অঙ্গাণু কোনটি?

উত্তর : ক্লোরোপ্লাস্ট।

9. শুক্রাণুর পুচ্ছ গঠনকারী কোশ অঙ্গাণু কোনটি?

উত্তর : সেন্ট্রোজোম (সেন্ট্রিওল)।

10. জাইলেমের একমাত্র সজীব উপাদান কোন্ কোশটি ?

উত্তর : জাইলেম প্যারেনকাইমা। 

11. স্বাদে টক, নীল লিটমাসকে লাল করে এমন অজৈব যৌগ কোনটি?

উত্তর : অ্যাসিড

12. বন্ধ্যাত্ব প্রতিরোধক ভিটামিন কোনটি।

উত্তর : ভিটামিন B1

13. রক্ত তঞ্চনে সহায়ক ভিটামিন কোনটি?

উত্তর : ভিটামিন KI

14. স্কার্ভি রোগ প্রতিরোধী ভিটামিন কোনটি?

উত্তর :  ভিটামিন Cl

15. পেলেগ্রা রোগ প্রতিরোধী ভিটামিন কোনটি ?

উত্তর :  ভিটামিন-Bs

16. রন্তু তঞ্চনে সাহায্যকারী খনিজ মৌল কোনটি ?

উত্তর : ক্যালসিয়াম।

17. হৃদপেশীর সঠিক কার্যাবলির জন্য কোন্ মৌলটি প্রয়োজন?

উত্তর : সোডিয়াম। 

18. হিমোসায়ানিন গঠনকারী খনিজ মৌল কোনটি?

উত্তর : তামা 

19. হিমোগ্লোবিন গঠনকারী খনিজ মৌল কোনটি? 

উত্তর: লৌহ।

20. ভিটামিন B12 সংশ্লেষে সাহায্যকারী খনিজ মৌল কোনটি? 

উত্তর : কোবাল্ট।

21. কোশ প্রাচীরের মধ্যপর্দা গঠনকারী যৌগ কোনগুলি? 

উত্তর : ক্যালশিয়াম ও ম্যানেশিয়াম পেকটেট।

22. পাশাপাশি অবস্থিত দুটি সজীব কোশের মধ্যে সংযোগরক্ষাকারী কোশপ্রাচীর মধ্যস্থ সজীব অংশকে কী বলা হয়?

উত্তর : প্লাজমোডেসমাটা।

23. প্রাণীকোশ কোন্ পদ্ধতিতে কোশপর্দার সাহায্যে কঠিন খাদ্যবস্তু গ্রহণ করে?

উত্তর : ফ্যাগোসাইটোসিস।

24. উদ্ভিদকোশের সাইটোপ্লাজমে যে জড়বস্তুগুলি বর্তমান তাদের কী বলা হয় ?

উত্তর : এর গ্যাস্টিক পদার্থ। 

25. প্রাণীকোশের সাইটোপ্লাজমে যে জড়বস্তুগুলি বর্তমান তাদের কী বলা হয়?

উত্তর : মেটাপ্লাস্টিক বডিজ।

26. অণুতত্ত্ব ও অনুনালিকা সাইটোপ্লাজমের কোন অংশ নিয়ে গঠিত?

উত্তর : সাইটোপ্লাজমীয় কঙ্কাল। 

27. সাইটোপ্লাজমের কোশপর্দা সংলগ্ন স্বচ্ছ দানাদার অংশকে কী বলে? 

উত্তর : এক্টোপ্লাজম।

28. সাইটোপ্লাজমের যে ঘন অংশ নিউক্লিয়াসের আশেপাশের অঞ্চলে থাকে তাকে কী বলে?

উত্তর : এন্ডোপ্লাজম। 

29. ট্রাকিয়া বা ভেসেলের ছিদ্রযুক্ত প্রান্ত প্রাচীরকে এককথায় কী বলে?

উত্তর :  ছিদ্র প্লেট / পারফোরেশন প্লেট

30. চলন ও গমনে সাহায্যকারী প্রাণীকলা কোনগুলি?

উত্তর : যোগকলা ও পেশিকলা

31. উদ্দীপনা পরিবহণকারী প্রাণীকলার উদাহরণ দাও।

উত্তর : স্নায়ুকলা

32. মানবদেহের সর্ববৃহৎ অঙ্গ কাকে বলা হয় ?

উত্তর : ত্বক

33. HCl ক্ষরণকারী মানবদেহের অঙ্গটির নাম লেখো।

উত্তর : পাকস্থলি।

34. ইনসুলিন হরমোন ক্ষরণকারী মানবদেহের অঙ্গটির নাম লেখো।

উত্তর : অগ্ন্যাশয়।

35. সর্ব বৃহৎ লসিকা গ্রন্থিটির নাম লেখো। 

উত্তর : প্লীহা।

36. সর্ব বৃহৎ পরিপাক গ্রন্থিটির নাম লেখো। 

উত্তর : বৃক্ষ

37. মানবদেহের প্রধান রেচন অঙ্গ কোনটি?

উত্তর : যকৃত

38. পুরুষের প্রধান জনন অঙ্গ কোনটি?

উত্তর : শুক্রাশয়। 

39. মহিলাদের প্রধান জনন অঙ্গ কোন্‌টি?

উত্তর :  ডিম্বাশয়।

40. প্রতিবর্তক্রিয়া নিয়ন্ত্রণকারী প্রধান অঙ্গ কোনটি ?

উত্তর : সুষুম্নাকাণ্ড। 


  জীবন সংগঠনের স্তর সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন উত্তর 

জীবন সংগঠনের স্তর দ্বিতীয় অধ্যায় | নবম শ্রেণীর জীবন বিজ্ঞান দ্বিতীয় অধ্যায় | সংক্ষিপ্ত প্রশ্নের গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নোত্তর |জীবন সংগঠনের স্তর SAQ প্রশ্নোত্তর | নবম শ্রেণীর জীবন বিজ্ঞান দ্বিতীয় অধ্যায় প্রশ্ন ও উত্তর ২০২২ 


1. যোগকলার গঠনগত বৈশিষ্ট্য লেখো।

উত্তর : যোগকলার গঠনগত বৈশিষ্ট্য

(i) যোগকলার দুটি প্রধান উপাদান হল—কোশসমূহ এবং বহিঃকোশীয় ধাত্র বা ম্যাট্রিক্স। কোশের তুলনায় ধাত্রের পরিমাণ বেশি।

(ii) কোশগুলি যথেষ্ট আলগা ও ছাড়া ছাড়া ভাবে অবস্থিত এবং আন্তঃকোশীয় স্থানে প্রোটিন জাতীয় তন্তুসমূহ এবং অন্যান্য ধাত্র পদার্থ দেখা যায়।

(iii) যোগকলাতে প্রচুর রক্ত সরবরাহ লক্ষ করা যায়, যদিও তরুণাস্থিতে রক্ত সরবরাহ থাকে না এবং কণ্ডরা (টেন্ডন)-তে রক্ত সরবরাহের পরিমাণ কম ।

(iv) এই কলাতে ভিত্তি পর্দা থাকে না।

(v) এরা একাধিক কলার মধ্যে সংযোগ রক্ষা করে।

2. কোশপর্দার কাজ কী কী?

উত্তর : কোশপর্দার কাজ 

(i) কোশপর্দা বা প্লাজমাপর্দা সজীব কোশের বহিঃ ও অন্তঃমাধ্যমের মধ্যে একটি অভিস্রবণীয় ব্যবধায়ক রূপে কাজ করে।

(ii) কোশ মধ্যস্থ সজীব অংশকে রক্ষা করে। (iii) কোশ মধ্যস্থ পদার্থ বা কোশ বহিঃস্থ পদার্থের পরিবহণ নিয়ন্ত্রণ করে। 

(iv) কোশপর্দাস্থিত গ্রাহক অণু কোশে বিভিন্ন প্রকার সংকেত পরিবহণে সাহায্য করে। 

3. মস্তিষ্ক কোথায় বর্তমান থাকে? মেনিনজেস কী?

উত্তর : মস্তিষ্ক আমাদের মাথার খুলি বা করোটির ভিতর বর্তমান থাকে। মস্তিষ্কের উপর যে ত্রিস্তর আবরণী মস্তিষ্ককে আঘাত ও সংক্রমণ থেকে রক্ষা করে তাদের মেনিনজেস বলা হয়।

4.RNA কাকে বলে ?

উত্তর: RNA >  রাইবোনিউক্লিওটাইড-5-মনোফসফেট দ্বারা গঠিত যে একতন্ত্রী নিউক্লিক অ্যাসিডে নাইট্রোজেন ক্ষারক হিসাবে অ্যাডিনিন, গুয়ানিন, সাইটোসিন ও ইউরাসিল থাকে, তাকে RNA বলে। 

5. ফ্যাট কাকে বলে?

উত্তর : ফ্যাট কাকে বলে > যে সকল লিপিড ফ্যাটি অ্যাসিড ও গ্লিসারলের সমন্বয়ে গঠিত এবং ঘরের স্বাভাবিক তাপমাত্রায় কঠিন অবস্থায় থাকে, তাকে ফ্যাট বলে।

6. লিপিড কাকে বলে?

উত্তর : লিপিড > ফ্যাটি অ্যাসিড ও অ্যালকোহলের সমন্বয়ে যে জৈব যৌগ (এস্টার) গঠিত হয়, তাকে লিপিড বলে।

7. ফ্যাটি অ্যাসিড কাকে বলে?

উত্তর: ফ্যাটি অ্যাসিড :

ফ্যাট অথবা লিপিডে পাওয়া যায় এমন মনোকার্বোক্সিলিক অ্যাসিডকে ফ্যাটি অ্যাসিড বলে। 


  জীবন সংগঠনের স্তর রচনাধর্মী প্রশ্নোত্তর 

জীবন সংগঠনের স্তর দ্বিতীয় অধ্যায় | নবম শ্রেণীর জীবন বিজ্ঞান দ্বিতীয় অধ্যায় | বড়ো প্রশ্নের গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নোত্তর | জীবন সংগঠনের স্তর রচনাধর্মী প্রশ্ন ও উত্তর নবম শ্রেণীর জীবন বিজ্ঞান দ্বিতীয় অধ্যায় প্রশ্ন ও উত্তর ২০২২ 


প্রশ্ন : আবরণী কলার বৈশিষ্ট্য লেখো।

উত্তর: আবরণী কলার বৈশিষ্ট্য

(i) আবরণী কলার কোশগুলি ভিত্তি পর্দার উপর এক বা একাধিক স্তরে সজ্জিত থাকে।

(ii) এই কলার কোশগুলি ঘনসন্নিবিষ্টভাবে পরস্পর যুক্ত থাকে।

(iii) এই কলার কোশগুলি চ্যাপটা, পাতলা আঁশের মতো বা স্তম্ভাকার বা ঘনতলাকার হতে পারে।

(iv) এই কলাতে বহিঃকোশীয় ধাত্র থাকে না এবং এই কলাতে রক্তবাহ থাকে না।


প্রশ্ন : অগ্ন্যাশয় গ্রন্থির কাজ লেখো।

উত্তর : অগ্ন্যাশয় গ্রন্থির কাজ 

(i) অগ্ন্যাশয়ের বহিঃক্ষরা কোশগুলি অগ্ন্যাশয় রস ক্ষরণ করে যার মধ্যে প্রোটিন, স্নেহবস্তু ও কার্বোহাইড্রেট জাতীয় খাদ্যবস্তু পরিপাককারী উৎসেচক বর্তমান থাকে।

(ii) অগ্ন্যাশয় রসে বাইকার্বোনেট আয়ন থাকে যা পাকস্থলি থেকে অস্ত্রে আসা তীব্র আম্লিক খাদ্যবস্তুকে প্রশমিত করে।

(iii) অগ্ন্যাশয়ের অন্তঃক্ষরা অংশ থেকে ক্ষরিত ইনসুলিন ও গ্লুকাগন নামক হরমোন দুটি রক্তের গ্লুকোজের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে [ইনসুলিন গ্লুকোজের মাত্রা কমায়। গ্লুকাগন গ্লুকোজের মাত্রা বাড়ায়।


প্রশ্ন : যে-কোনো এক প্রকার জটিল স্থায়ী কলার বৈশিষ্ট্য ও কাজ লেখো। 

উত্তর: উদ্ভিদের জটিল স্থায়ী কলা হল জাইলেম ও ফ্লোয়েম। এখানে জাইলেন-এর বৈশিষ্ট্য ও কাজ বর্ণনা করা হল। 


জাইলেম-এর বৈশিষ্ট্য : 

(i) এই কলা চারটি উপাদান বা কোশের সমন্বয়ে গঠিত হয়। যথা—ট্রাকিড, ট্রাকিয়া, জাইলেম প্যারেনকাইমা ও জাইলেম তন্তু বা কাষ্ঠল তত্ত্ব।

(ii) ট্রাকিড, ট্রাকিয়া ও জাইলেম তত্ত্বর প্রাচীর পুরু ও লিগনিনযুক্ত কিন্তু জাইলেম প্যারেনকাইমার প্রাচীর পাতলা ও সেলুলোজ নির্মিত।

(iii) ট্রাকিড, টাকিয়া ও জাইলেম তত্ত্ব মৃত কিন্তু জাইলেম প্যারেনকাইমা সজীব।

(iv) এই কলার তিনটি উপাদান মৃত বলে, একে মৃত বলাও বলা হয়।

জাইলেম -এর কাজ :

(i) মূলরোম দ্বারা জল ও খনিজ লবণের মিশ্রণ বা রস (sap) পাতায় দেয়। 

(ii) উদ্ভিদদেবহে জন্ত্রিক দৃঢ়তা প্রদান। 


প্রশ্ন : জীবদেহে জলের ভূমিকাগুলি সংক্ষেপে লেখো।

উত্তর: জীবদেহের জলের ভূমিকা

(i) জল মেরুবিশিষ্ট বা পোলার অণু হওয়ায় এটি গুরুত্বপূর্ণ দ্রাবক হিসাবে কাজ করে। মেরুযুক্ত পদার্থগুলি সেজন্য সহজেই জলে দ্রবীভূত হয় ও কোশের অধিকাংশ জৈব রাসায়নিক বিক্রিয়া জলীয় দ্রবণে ঘটে।

(ii) উদ্ভিদের রসের উৎস্রোত, প্রাণীদেহে রক্তসংবহন, রেচন প্রভৃতি জলের দ্রবণীয়তা ধর্মের জন্যই ঘটে। (iii) জলের উচ্চ তাপন ক্ষমতার জন্য কোশের জলীয় দ্রবণে সংঘটিত বিক্রিয়াগুলি পরিবেশের তাপমাত্রার তারতম্যের কারণে বিশেষ প্রভাবিত হয় না। 

(iv) প্রোটোপ্লাজমকে সিক্ত রাখে ও প্রাণীদেহে খাদ্যের m01 আর্দ্র বিশ্লেষণে সাহায্য করে।

(v) জীব হের যে-কোনো বিক্রিয়াই জলীয় মাধ্যমে সম্পন্ন হয় অর্থাৎ বিভিন্ন জৈব রাসায়নিক বিক্রিয়ার বিকারক হিসাবে জল গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। 

(vi) নানাধরনের দেহতরল গঠনে জল লাগে। 


প্রশ্ন : লিপিড কাকে বলে? লিপিডের বৈশিষ্ট্য এবং ভিত্তর জৈবনিক প্রক্রিয়ায় লিপিডের ভূমিকা লেখ ? 

উত্তর : লিপিড ফ্যাটি অ্যাসিড এবং অ্যালকোহল বিক্রিয়ায় উৎপন্ন এস্টারকে লিপিড বলে।

লিপিডের বৈশিষ্ট্য :

(i) লিপিড যদি ফ্যাটি অ্যাসিড ও অ্যালকোহলের মিশ্রণে গড়ে ওঠে, সেটি হল সরল লিপিড। লিপিডের সঙ্গে অনেকক্ষেত্রে শর্করা, প্রোটিন, ফসফেট, নাইট্রোজেন বেস প্রভৃতি যুক্ত থাকলে যৌগিক লিপিড গঠিত হয়। সরল বা যৌগিক লিপিড ভেঙে লব্ধ লিপিড গঠিত হয় (যেমন— কোলেস্টেরল)।

(ii) এদের কোনো স্বাদ, বর্ণ বা গন্ধ থাকে না। 

(iii) এরা জলে দ্রবীভূত হয় না এবং ইথার, বেঞ্জিন, ক্লোরোফর্ম প্রভৃতি ফ্যাট দ্রাবকে দ্রবীভূত হয়।


জৈবনিক প্রক্রিয়ায় লিপিডের ভূমিকা :

(i) জীবদেহে লিপিড সঞ্চিত খাদ্য হিসাবে জমা থাকে এবং শ্বসনের সময় জারিত হলে প্রচুর শক্তি উৎপন্ন করে।

(ii) উদ্ভিজ্জ মোম বাষ্পমোচন প্রতিরোধে সাহায্য করে। মৌ-মোম মৌমাছিরা মৌচাক গঠনে ব্যবহার করে। 

(iii) ফসফোলিপিড কোশপর্দা গঠনে ব্যবহৃত হয়।

(iv) লিপিড দ্রাবকের ন্যায় কাজ করে, ভিটামিন A, D, E এবং K প্রভৃতিকে দ্রবীভূত রাখে।

(v) বিভিন্ন স্টেরয়েড হরমোন গঠন করে। 


প্রশ্ন : ভিটামিন কাকে বলে? ভিটামিনের বৈশিষ্ট্য লেখো

উত্তর : ভিটামিন খাদ্যে অতি অল্প পরিমাণে উপস্থিত, শক্তি অনুৎপাদক যে জৈব পরিপোষক যা আমাদের দেহের স্বাভাবিক পুষ্টি ও বৃদ্ধিতে সাহায্য করে ও রোগ প্রতিরোধক শক্তি বাড়িয়ে তোলে, তাকে ভিটামিন বলে।

• ভিটামিনের বৈশিষ্ট্য :

(i) ভিটামিন একরকমের জৈব অনুঘটক 

(ii) ভিটামিন সাধারণ খাদ্যে অতি অল্প পরিমাণে থাকে।

(iii) ভিটামিন বিপাক ক্রিয়ায় উৎসেচকের সঙ্গোকো-এনজাইম হিসাবে কাজ করে। 

(iv) অধিকাংশ ভিটামিন বিপাক ক্রিয়ায় বিনষ্ট হয়; কিন্তু পাচন ক্রিয়ায় নষ্ট হয় না।

(v) ভিটামিন জলে বা স্নেহপদার্থে দ্রবীভূত হয়। 


প্রশ্ন : কোশপ্রাচীরের গঠন ও কাজ লেখো।

উত্তর: কোশপ্রাচীরের গঠন :

যৌগিক আলোক অণুবীক্ষণ যন্ত্রে দৃশ্য পরিণত উদ্ভিদকোশের কোশপ্রাচীর সমকেন্দ্রীয়ভাবে অবস্থিত তিনটি স্তরের সমন্বয়ে গঠিত। যেমন—

(i) মধ্যপর্দা বা মধ্য ল্যামেলা : উদ্ভিদকলার দুটি কোশের মধ্যবর্তী স্থানে যে অন্তঃকোশীয় ধাত্র থাকে তাকে মধ্যপর্দা বলে। এটি মূলত ক্যালশিয়াম পেকটেট, ম্যাগনেশিয়াম পেকটেট এবং কয়েকপ্রকার প্রোটিন দ্বারা গঠিত। মধ্য ল্যামেলা দুটি সংলগ্ন কোশকে দৃঢ়ভাবে আটকে রাখে

(ii) প্রাথমিক প্রাচীর মধ্য ল্যামেলার উভয় পাশে যে প্রাচীর গঠিত হয়, তাকে প্রাথমিক প্রাচীর বলে। এই স্তরটি প্রধানত সেলুলোজ দ্বারা গঠিত। এ ছাড়া হেমিসেলুলোজ, লিগনিন, সুবেরিন জাতীয় পদার্থও এই প্রাচীর গঠনে অংশগ্রহণ করে। প্রাথমিক প্রাচীর তুলনামূলকভাবে পাতলা এবং ভেদ্য। এই প্রাচীরটি চওড়ায় সাধারণত 1-3pm পর্যন্ত হয়।

(iii) গৌণ প্রাচীর : প্রাথমিক প্রাচীরের ভেতরের দিকে যে কোশপ্রাচীর স্তরটি গঠিত হয়, তাকে গৌণ প্রাচীর বলে। এই প্রাচীরটি তিনটি সূক্ষ্ম স্তর দ্বারা গঠিত, যথা- S S2, S3। কোশপ্রাচীর স্তরটি লিগনিন, সেলুলোজ, হেমিসেলুলোজ ইত্যাদি উপাদানের দ্বারা গঠিত হয়। এই প্রাচীরটি পুরু, শক্ত, ভেদ্য এবং চওড়ায় 5-10m হয়।

উত্তর : কোশপ্রাচীরের কাজ  : 

(i) কোশের প্রোটোপ্লাজম ও প্লাজমা পর্দাকে বাইরের আঘাত থেকে রক্ষা করে।

(ii) কোশকে যান্ত্রিক দৃঢ়তা প্রদান করে।

(iii) কোশের আকৃতি প্রদান করে।

(iv) প্লাজমাডেসমাটার মাধ্যমে পার্শ্ববর্তী কোশের সঙ্গে সংযোগ স্থাপিত হয়।






Tags

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ